আলেমদের জুতার কোম্পানি এস কে এমে’র শোরুম হচ্ছে সিলেটে

আকর্ষণীয় ডিজাইন ও টেকসই চামড়ার জুতা তৈরি করে ইতোমধ্যেই ব্যাপক সাড়া ফেলেছে এস কে এম কোম্পানি। ক্ষুদ্র কারখানা থেকে তাদের এই পণ্য ছড়িয়ে পড়ছে সারা দেশে। সেই ধারাবাহিকতায় চলতি মাসেই এস কে এমের শোরুম হচ্ছে ইসলামপুর, মেজরটিলা, সিলেটে।

সম্প্রতি এস কে এমের অফিসিয়াল ফেসবুক পেইজে এক বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ করে এই ঘোষণা দেওয়া হয়।

গতকাল সন্ধ্যায় সিলেটে শোরুম প্রার্থী মাওলানা তালহার সাথে এস কে এম কোম্পানির একটি চুক্তি স্বাক্ষরিত হয়। এ সময় উপস্থিত ছিলেন, এস কে এমের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা মুফতি সাইফুল ইসলাম, এস কে এমের চেয়ারম্যান মোঃ রাজু আহমেদ, জামিয়া আরাবিয়া রবিউল উলূম ও মাদরাসাতু সালমান ঢাকার প্রধান মুফতি এবং জামেয়া শারিফিয়া আরাবিয়া লালবাগ,ঢাকার সিনিয়র মুহাদ্দিস মুফতী মুহাম্মদ আলী কাসেমী, ক্যারিয়ার বাংলাদেশের চেয়ারম্যান মুফতি আফজাল হোসাইন এবং বিশিষ্ট লেখক ও আলোচক মাওলানা মাহমুদুল হোক জালীস প্রমুখ।

এ সময় মুফতি মুহাম্মদ আলী কাসেমী বলেন, আমি ভারতের দেওবন্দ মাদরাসায় পড়ার সময় দেখেছি, দেওবন্দি বড় বড় আলেম ব্যবসা করেন। মাওলানা সাঈদ আহমদ পালনপুরী রহ.সহ অনেক আলেমেরই লাইব্রেরি এবং প্রকাশনী ছিল। কিতাবে পড়েছি, নবীজি সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম ব্যবসা করেছেন। সাহাবায়ে কেরাম ব্যবসায়ী ছিলেন। আমাদের ইমাম আবু হানিফা রহ. এত বড় আলেম হয়েও ব্যবসা করতেন। তিনি ব্যবসা করে হাজার হাজার আলেম তৈরি করেছেন। কিন্তু, এই বিষয়টার চর্চা এত দিন বাংলাদেশে দেখিনি।

মুফতি মুহাম্মদ আলী কাসেমী বলেন, আলহামদুলিল্লাহ মুফতি সাইফুল ইসলামদের হাত ধরে ধীরে ধীরে বাংলাদেশি আলেমদের অবস্থাও পরিবর্তন হচ্ছে। তারা ব্যবসায় এগিয়ে আসছেন এবং এসব ব্যবসায়ী আলেম মাদরাসায় পড়ানোর ক্ষেত্রেও অনেক যোগ্যতা সম্পন্ন। তারা সকাল থেকে দুপুর পর্যন্ত মাদরাসায় সময় দিচ্ছেন, আবার বিকালে ব্যবসায় লেগে যাচ্ছেন। ব্যবসা করাটা ফজিলতেরও বিষয়। আমাদের প্রিয় নবীজি সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম সত্যবাদী ব্যবসায়ীদের বিষয়ে সুসংবাদ দিয়েছেন।

এস কে মের বিষয় উল্লেখ করে মুফতি মুহাম্মদ আলী কাসেমী বলেন, আলেমদের এই জুতার কোম্পানি অল্প সময়ে আরো বেশি গ্রহণযোগ্য হবে ইনশাআল্লাহ। কিতাবে ব্যবসা–বাণিজ্য অধ্যায়ে যেসব মাসআলা মাসায়েল রয়েছে এস কে এমের ওনার মুফতি সাইফুল ইসলামকে ওগুলো নিজের ব্যবসায় প্রয়োগ করতে দেখি বলেও উল্লেখ করেন তিনি।

ওই চুক্তি স্বাক্ষর অনুষ্ঠানে প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা মুফতি সাইফুল ইসলাম বলেন, এস কে এম হলো আলেম বান্ধব কোম্পানি। এর মাধ্যমে আমরা নিজেরা যেমন স্বাবলম্বী হতে চাই, তেমন অন্যান্য আলেমদেরকও মসজিদ-মাদরাসার পাশাপাশি ব্যবসায় পথ দেখাতে চাই। যেন তারা পরনির্ভর না থেকে স্বাবলম্বী হয়ে ভালোভাবে দ্বীনের খেদমত করতে পারেন।

মুফতি সাইফুল ইসলাম বলেন, আলেমরা ব্যবসায় এলে অন্য ব্যবসায়ীদের জন্য তারা অনুসরণীয় হবেন। সাধারণ ব্যবসায়ীরা মনে করেন–মিথ্যা বলা ও প্রতারণা করা ছাড়া ব্যবসায় টেকা যায় না। অথচ, নবীজি সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম, সাহাবায়ে কেরাম এবং আমাদের পূর্বসূরি বুজুর্গ আলেমরা ব্যবসা করেছেন পূর্ণ সততার সাথে। এ যুগের আলেমরাও ওইরকম সততার সাথে ব্যবসায় এগিয়ে এলে ক্রেতারা ভালো ও খাঁটি পণ্য পাবে। আলেমদের প্রতি মানুষদের আস্থা আরো বেড়ে যাবে। সাধারণ ব্যবসায়ীরাও সততার সাথে ব্যবসা করা শিখবে।

Be the first to comment

Leave a Reply

Your email address will not be published.


*