নির্বাচনী উত্তাপে সরগরম গাইবান্ধা-৫ আসন

গাইবান্ধা সংবাদদাতা: উপ-নির্বাচন সামনে রেখে সরগরম গাইবান্ধা-৫ আসনের সাঘাটা ও ফুলছড়ি। নির্বাচনে আওয়ামী লীগ, জাতীয় পার্টি, বিকল্পধারা ও স্বতন্ত্র প্রার্থীসহ পাঁচ জন প্রার্থী প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন। জয়ের মালা পরার ব্যাপারে আশাবাদী সবাই। এবার ইভিএমে ভোট হবে। ভোটগ্রহণ নির্বিঘœ করতে সব ধরনের ব্যবস্থা নেয়া হয়েছে বলেও জানিয়েছে নির্বাচন কমিশন।

জাতীয় সংসদের ডেপুটি স্পিকার ফজলে রাব্বী মিয়ার মৃত্যুতে গত ২৪শে জুলাই শূন্য হয় গাইবান্ধা-৫ আসন। এ আসনে উপ-নির্বাচনের ভোট হবে আগামী ১২ই অক্টোবর। গেল ২৩ শে সেপ্টেম্বর প্রতীক বরাদ্দের পরই প্রচারণায় নেমেছেন প্রার্থীরা। নির্বাচনে পাঁচ জন প্রার্থী প্রতিদ্বন্দ্বিতা করলেও মাঠে সরব আওয়ামী লীগ, জাতীয়পার্টি ও স্বতন্ত্র প্রার্থীরা। মন জয় করতে ভোটারদের দ্বারে দ্বারে যাচ্ছেন তারা। বালাশীতে টানেল নির্মাণ, চরাঞ্চলের উন্নয়নসহ দিচ্ছেন নানা প্রতিশ্র“তি।

এ আসনে ক্ষমতাসীন দল আওয়ামী লীগ মনোনয়ন দিয়েছে ছাত্রলীগের সাবেক কেন্দ্রীয় সভাপতি মাহমুদ হাসান রিপনকে। দীর্ঘ সময় দলকে সু-সংগঠিত করতে কাজ করায় জয়ের ব্যাপারে আশাবাদী তিনি।

লাঙ্গল প্রতিক নিয়ে নির্বাচনে প্রতিদ্বন্দিতা করবেন সাঘাটা উপজেলা জাতীয় পার্টির সভাপতি গোলাম শহীদ রঞ্জু। জাতীয় পার্টির আসন পুনরুদ্ধারে ভোট চাইছেন তিনি। আর নির্বাচনে জয়ের ব্যাপারে আশাবাদী দুই স্বতন্ত্র প্রার্থীও।

তবে প্রতিশ্রুতি নয়, এলাকার উন্নয়নে কাজ করবে, জনগনের পাশে থাকবে এমন প্রার্থীকে জয়ী করতে চান ভোটাররা।

নির্বাচন সুষ্ঠুভাবে সম্পন্ন করার জন্য সব রকম প্রস্তুতি নেয়া হয়েছে বলে জানিয়েছেন নির্বাচন কমিশনার রাশেদা সুলতানা।

নির্বাচনে সাঘাটা উপজেলার ২ লক্ষ ২৫ হাজার ৭০ জন এবং ফুলছড়ি উপজেলার ১ লক্ষ ১৪ হাজার ৬৭৬ জন ভোটার তাদের ভোটাধিকার প্রয়োগ করবেন।

Be the first to comment

Leave a Reply

Your email address will not be published.


*